Categories
ABORIGIN ভাষা - বাংলা

“Babu’s” of কোচ রাজবংশী কামতাপুরী ।

Paritosh Karjee

আজিকালি আপনারা যাহারা প্রথাগত শিক্ষার উপর ভর করিয়া কেহ অফিস-আদালতে, কেহ স্কুল-কলেজ-বিশ্ববিদ্যালয়ে উচ্চ আসন লইয়া চক্ষু-কর্ণ রুদ্ধ করিয়া সুখে দিনাতিপাত করিতেছেন, আমরা সমাজের সিকি শিক্ষিত, আধুলি শিক্ষিতরা আপনাদের অবলোকন করিয়া আত্মশ্লাঘা অনুভব করি, বক্ষমধ্যে আশার পাহাড় বুনিয়া চলি – আপনারা আমাদের সকল অন্যায় অবিচারের বিপক্ষে দাঁড়াইয়া আপনাদিগের শাণিত বুদ্ধি খরচ করিবেন, আমাদের আগামী পথের দিশারী হইবেন। সেই হেতু আজিও আমরা কষ্ট করিয়া মঞ্চ বাঁধিয়া আপনাদিগকে সসম্মানে মঞ্চোপরিভাগে বসাইয়া আপনাদিগের কথা শুনিবার নিমিত্ত প্রণত হই। কিন্তু, দেখা যাইতেছে, আপনারা আমাদের মস্তকোপরে হস্ত প্রলেপন করিয়া এযাবৎ আমাদিগকে বোকা বানাইয়া, আমাদিগকে ব্যবহার করিয়া শুধুমাত্র আপনার আখের গোছাইয়াছেন, সমাজের কোন কাজে আগাইয়া আইসেন নাই। জল মাপিয়া চলিয়াছেন, যে স্থানে নামিলে আপনার “কাষ্টি” ভিজিতে পারে, যে কথা বলিলে “ওনারা” খেপিয়া যাইতে পারেন, তাহাতে আপনার দুই-একটা “এ্যাও” পাওয়ার স্বপ্ন চিরতরে নির্মূল হইতে পারে–সেই ন্যায্য কথা আপনি এড়াইয়া গিয়াছেন, আমরা যাহা কোনকালে ভাবিতে পারি নাই, আশা করি নাই। আমরা আপনাদেরকে সম্মান দিয়া মঞ্চে তুলিতে তুলিতে, আপনাদের মঞ্চে উঠিতে উঠিতে ভাবিয়া বসিয়া আছেন- মঞ্চোপরিভাগের সম্মানীয় কেদারা জীবন-ভর বরাদ্ধ থাকিবে। যদি চ এইমত ভাবিয়া থাকেন, ভুল করিয়াছেন।

আপনি বেতনের পরিবর্তে আপনার অফিসে-কাছারিতে-স্কুলে-কলেজে-বিশ্ববিদ্যালয়ে “বাঙি” ফাটাইয়াছেন, সমাজের হিতে আপনি কী করিয়াছেন যাহার জন্য আপনার চরণে প্রণত হইব–এই উত্তর আজিকার যুব সমাজ খুঁজিয়া বেড়াইতেছে। ইহাও ধীরে ধীরে আমাদের জ্ঞাত হইতেছে, ইহার উত্তর আপনাদিগের নিকট নাই। আজিকালি সোস্যাল মিডিয়ার যুগ, খুলিলেই সকল তথ্য চাক্ষুষ করা যায়। আপনার মুখচ্ছবি সোস্যাল মিডিয়ায় দিতে পারেন, আপনার পুত্র-কন্যা, সহধর্মিনীর প্রতিচ্ছবি দিবার সময় হয়, আপনি কী কী পাইয়াছেন সাড়ম্বরে ঘোষণা করিবার সময় হয় কিন্তু জবা রায়, সন্ধ্যা রায়ের নির্মম পরিণতির কথা আপনি চর্ম চক্ষে দেখিতে পারেন না। অত্যাচারিত বিনয় বর্মনের কথা আপনার কর্ণে প্রবেশ করিতে পারে না। অন্তত পক্ষে নিজের ফেসবুক একাউন্টে অঙ্গুলি টিপ্পনি দ্বারা প্রতিবাদ পর্যন্ত করিতে সাহস করেন না-যদি “ওনারা” কেহ গোষা হইয়া যায়, “এ্যাও” টা যদি না দেয়।

হে মহানুভবরা, আপনাদের অভিসন্ধি এযাবৎকাল বুঝিয়া উঠিতে পারি নাই। আজি কিন্তু বুঝিয়া গেছি। তাই, আবার মঞ্চ বাঁধিব, আপনারা খড়ের “জুড়া” পাকাইয়া রাখিতে পারেন অদ্য হইতেই, কারণ আপনাদিগের এইবার মাটিতে বসিতে হইবে, আযৌবন কোমল কেদারায় বসা পশ্চাতদেশ মাটি লাগিয়া আপনার ধোপা-ধৌত বেশ মলিন হইতে পারে। বৃদ্ধ বয়সে স্ত্রী-সন্তানকে ধূলামলিন পশ্চাতদেশ দেখাইবেন কেমন করিয়া? তাই আগাম “জুড়া” পাকাইয়া রাখিতে পারেন।

# Rajbanshi Babu

View All Postsআপনিও পোস্ট করুনAdvertise your Product or Service
Share this:

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

45 Views